মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

রোগীকল্যাণ সমিতি

সরকারি উদ্যোগের পাশাপাশি বেসরকারি উদ্যোগকে সম্পৃক্ত করার লক্ষ্যে হাসপাতাল সমাজসেবা কার্যক্রমকে জোরদারকরণের জন্য প্রতিটি হাসপাতালে আইন অনুযায়ী নিবন্ধিত রোগীকল্যাণ সমিতি নামে একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন বিদ্যমান রয়েছে।  এ সংগঠন ১৯৬১ সনের ৪৬ নং ‘স্বেচ্ছামূলক সমাজকল্যাণ প্রতিষ্ঠান (রেজিস্ট্রেশন ও নিয়ন্ত্রণ) অর্ডিন্যান্স’ এর আওতায় নিবন্ধিকৃত। সংগঠনটি সরকারি কর্মকর্তা, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি, বিশিষ্ট সমাজকর্মী, দানশীল ও বেসরকারি ব্যক্তিবর্গের সমন্বয়ে গঠিত। নিবন্ধিত সমিতিগুলো মূলত হাসপাতাল সমাজসেবা কার্যক্রমকে সার্বিক সহায়তা প্রদানসহ রোগীদের আর্থিক সহায়তা প্রদানের লক্ষ্যে রোগীকল্যাণ সমিতির তহবিল সংগ্রহ ও সেবার মান উন্নয়নের জন্য পরামর্শ প্রদান করে থাকে। বর্তমান সরকারের নির্দেশানুযায়ী গ্রামীণ দরিদ্র জনগোষ্ঠীর চিকিৎসা সহায়তার জন্য চিকিৎসা সমাজসেবা কার্যক্রম সম্প্রসারণের লক্ষ্যে বরিশাল বিভাগের ০৬ টি জেলার সদর উপজেলা বাদে সকল উপজেলায় উপজেলা হেলথ্ কমপ্লেক্সে রোগীকল্যাণ সমিতি গঠন ও নিবন্ধনের কাজ সম্পন্ন হয়েছে যা সরাসরি আর্তপীড়িতের সেবায় সম্পৃক্ত। 

 

  • উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে  এ পর্যন্ত হাসপাতালে আগত গরীব, অসহায় ও দুস্থ রোগীদের রোগীকল্যাণ সমিতির মাধ্যমে ঔষধ, রক্ত, বস্ত্র, ক্রাচ, হুইলচেয়ার, কৃত্রিম অঙ্গ প্রদানের মাধ্যমে উপকৃত এবং আর্থিক, সামাজিক ও অন্যান্যভাবে সেবা প্রদান করা হয়।

 

হাসপাতাল সমাজসেবা কার্যালয়- ৭টি

জেলা পর্যায়ে রোগী কল্যাণ সমিতি- ৭টি

উপজেলা পর্যায়ে রোগী কল্যাণ সমিতি- ৩৬টি

 

ছবি


সংযুক্তি


সংযুক্তি (একাধিক)



Share with :

Facebook Twitter